নিয়ামতপুরে আদিবাসী নারী গলায় ফাঁশ দিয়ে আত্মহত্যা

0
17

 

মোঃনাজমুল হক নিয়ামতপুর প্রতিনিধিঃ

নিয়ামতপুরে কাপু মুর্মু (৩৫) নামের আদিবাসী এক নারীর (মানষিক রোগী) গলায় ফাঁশ দিয়ে মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালে নিয়ামতপুর উপজেলার হাজিনগর ইউনিয়নের মোহাম্মদপুর গ্রাম হতে ঐ নারীর মৃত দেহ উদ্ধার করে নিয়ামতপুর থানা পুলিশ। গতকাল বুধবার দিবাগত রাতে এ ঘটনা ঘটে। নিহত নারী ঐ গ্রামের শ্রী মকছেদ টুডুর স্ত্রী

নিহতের পরিবার সুত্রে জানা যায়, কাপু মুর্মু প্রতিদিনের মত ঘটনার দিনও রাতের খাবার খেয়ে তার ১৩ বছরের কন্যা সর্জিনাকে সংঙ্গে নিয়ে বারান্দায় শুয়ে পড়ে। সকালে ঘুম ভেঙ্গে মেয়ে সর্জিনা দেখে তার মা বারান্দার বাঁশের তীরের সাথে গলায় ফাঁস দিয়ে মরে ঝুলে আছে। এ দৃশ্য দেখে মেয়েটি চিৎকার করলে পরিবারের অন্যান্য লোকজন ও পাড়া-প্রতিবেশীরা ছুটে আসে এবং নিয়ামতপুর থানা পুলিশকে সংবাদ দেয়। সংবাদ পেয়ে থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে।

নিহত গৃহবধুর ভাই রমেশ মুর্মু জানান, তার বোনের স্বামী কয়েক বছর যাবৎ প্যারালাইজড হয়ে বিছানায় পড়ে আছে। আর তার বোনটিও ছিল মানুষিক রোগী। সম্ভবত মানুষিক ভারসাম্য হারিয়েই এমন ঘটনাটি ঘটে থাকতে পারে। তার সাথে কারো কোন শত্রুতা ছিল না। নিয়ামতপুর থানার কর্মকর্তার ভারপ্রাপ্ত
(ওসি) হুমায়ন কবির জানান, এ ঘটনায় থানায় ইউডি মামলা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here