করোনাকালেও দেশের অর্থনৈতিক চাকা সচল রেখেছে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা–খাদ্যমন্ত্রী

0
1

 

সাইফুল ইসলাম রয়েল সাপাহার (নওগাঁ) প্রতিনিধি: বাংলাদেশ সরকারের সু-যোগ্য খাদ্য মন্ত্রী বাবু সাধন চন্দ্র মজুমদার এমপি বলেছেন, বঙ্গবন্ধুর কন্যা দেশ নেত্রী শেখ হাসিনা দেশ ও দেশের সকল মানুষকে ভালবেসে তার পিতার আদর্শে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। দেশ যখন করোনা সংকটে ঠিক তখনই একটি রাজনৈতিক দল মন্তব্য করে বলেছিল যে, দেশে দুই থেকে আড়াই লক্ষ মানুষ না খেয়ে মারা যাবে। আমাদের নেত্রী সৃষ্টিকর্তার উপর ভরসা রেখে আরমকে হারাম করে তিনি প্রতিটি দপ্তরে গিয়ে দেশের উন্নয়নের বিষয়গুলির খোঁজ খবর নিয়েছেন। সে সময় আমরা করোনাকে মোকাবেলা করে অন্যদিকে দেশের প্রতিটি দপ্তরকে সচল রাখতে পেরেছি যার কারণে করোনা কালেও বাংলাদেশে অর্থনৈতিক চাকা যেমন সচল ছিল এখনও সচল রয়েছে। এছাড়া ক্ষুধা ও দারিদ্র মুক্ত আত্ননির্ভরশীল উন্নত সমৃদ্ধ দেশ গড়া এখন বর্তমান সরকারের প্রধান লক্ষ। এ লক্ষ্য অর্জনে অন্যন্য খাতের মতো দেশের খ্যাদ্য ব্যাবস্থাপনাকে আরোও বাস্তবমুখী ও শক্তিশালী করতে নানা কার্যক্রম হাতে নেয়া হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার এমপি।
বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে নিজ আসন নওগাঁ জেলার সাপাহার উপজেলার ঐতিহ্যবাহী জবই বিলে মাছের পোনা অবমুক্তকরণ ও উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত দুস্থ্যদের মাঝে নগদ অর্থ বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য দিতে গিয়ে খাদ্যমন্ত্রী কথাগুলি বলেন।

সাপাহার উপজেলা নির্বাহী অফিষার আব্দুল্যাহ আলমামুন এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে সাপাহার উপজেলা পরিষদ চেয়াম্যান শাহজাহান হোসেন, সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার সাপাহার সার্কেল বিনয় কুমার, সাবেক উপজেলা পরিষদ চেয়াম্যান শামসুুল আলম শাহ চৌধুরী, প্রমুখ বক্তব্য প্রদান করেন।

অনুষ্ঠানের শুরুতে এবং শেষে প্রধান অতিথি জবই বিলে ২লক্ষ টাকার ৭৪১কেজি বিভিন্ন প্রজাতির মাছের পোনা অবমুক্ত করেন এবং সাপাহার উপজেলা পরিষদে এসে উপজেলার ৬টি কিশোর কিশোরী ক্লাবে বিভিন্ন ধরণের বাদ্য যন্ত্র প্রদান, অসহায় দুস্থ্য ১০জন শিল্পীদের মাঝে ২হাজার ৫০০শ টাকা, প্রাকৃতিক দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্থ্য দুস্থ্য ৬০জন কৃষকের মাঝে কৃষি প্রণোদনা প্রদান শেষে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে দেড় হাজার ফলজ, বনজ ও ঔষধী গাছের চারা বিতরণ করেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here